গুরুত্বপূর্ণ উপভোক্তা সুরক্ষা বিল, ২০১৯-এ সংসদের অনুমোদন

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক | August 8, 2019 | 10:52 am

নয়াদিল্লি: সংসদে মঙ্গলবার গুরুত্বপূর্ণ উপভোক্তা সুরক্ষা বিল, ২০১৯ অনুমোদিত হয়েছে। এই বিলের উদ্দেশ্য হল গ্রাহকদের অভাব-অভিযোগের সময় মতো নিষ্পত্তির জন্য এক কার্যকর প্রশাসন গঠন করে গ্রাহক অধিকারের বিষয়টি সুরক্ষিত রাখা। উল্লেখ করা যেতে পারে, গত ৩০ জুলাই বিলটি লোকসভায় পাশ হয়। মঙ্গলবার রাজ্যসভাতেও বিলটি ধ্বনি ভোটে পাশ হয়েছে। তিন দশকেরও বেশি পুরনো উপভোক্তা সুরক্ষা আইন, ১৯৮৬-র পরিবর্তে এই বিলটি কার্যকর হবে।
রাজ্যসভায় বিলটি পেশ করে বিভাগীয় মন্ত্রী শ্রী রামবিলাস পাসোয়ান বলেন, নতুন নিয়মে গ্রাহক অভিযোগ নিষ্পত্তি ব্যবস্থা আরও সরল ও সহজ হয়ে উঠবে। দ্রুততার সঙ্গে গ্রাহক অভিযোগের নিষ্পত্তিতে এক কার্যকর ব্যবস্থা গড়ে তোলার সংস্থানগুলি রয়েছে। এর ফলে, দীর্ঘদিন জমে থাকা গ্রাহক অভিযোগগুলির নিষ্পত্তি আরও ত্বরান্বিত হবে।


শ্রী পাসোয়ান আরও জানান, বিলটির আইনি সংস্থান নিয়ে সুদীর্ঘ আলোচনা হয়েছে এবং বিলটিতে সংসদীয় স্থায়ী কমিটির পাঁচটি প্রস্তাব বাদ দিয়ে বাকি সবগুলি অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। মন্ত্রী সংসদ সদস্যদের আশ্বস্ত করে বলেন, আইনি কাঠামোর মধ্যে যতদূর সম্ভব তাঁদের প্রস্তাবগুলি অন্তর্ভুক্ত করার বিষয়টি বিবেচনা করা হয়েছে।
গ্রাহক সুরক্ষা ও অধিকারগুলির আরও কার্যকর রূপায়ণে এই বিলে একটি কেন্দ্রীয় উপভোক্তা সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ গঠনের প্রস্তাব রয়েছে। প্রস্তাবিত কর্তৃপক্ষ অবৈধ বাণিজ্য চালানোর দায়ে উদ্ভূত বিভিন্ন সমস্যার বিষয়ে হস্তক্ষেপ করতে পারবে। এছাড়াও, সংশ্লিষ্ট সংস্থার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের পাশাপাশি পণ্যসামগ্রী ফিরিয়ে নেওয়া, ক্ষতিপূরণ দেওয়ার মতো উদ্যোগও কর্তৃপক্ষ গ্রহণ করতে পারবে। এই বিলে বিবাদ নিষ্পত্তির একটি সরল ব্যবস্থার কথা বলা হয়েছে, যেখানে মধ্যস্থতা ও ই-মামলা দাখিলের সুবিধাও রয়েছে। এর ফলে, উপভোক্তারা তাঁদের এলাকার নিকটবর্তী কমিশনের কাছে মামলা দায়ের করতে পারবেন। এই প্রথমবার বিলে পণ্য দায়বদ্ধতা সংক্রান্ত আইনি সংস্থান রয়েছে। এর ফলে, উৎপাদক সংস্থা বা পণ্য পরিষেবাদাতা অথবা পণ্য বিক্রেতা পণ্যের ক্ষেত্রে কোন ঘাটতি থাকলে বা খুঁত ধরা পড়লে অথবা পরিষেবায় ব্যাঘাত ঘটলে ক্ষতিপূরণ দিতে বাধ্য থাকবেন। এছাড়াও বিলে বিভ্রান্তিকর অভিযোগ এবং পণ্যে ভেজাল রুখতে শাস্তির সংস্থান রাখা হয়েছে। পণ্য দায়বদ্ধতা সংক্রান্ত আইনি ব্যবস্থার ফলে উৎপাদক সংস্থা ও পরিষেবাদাতাদের ত্রুটিযুক্ত পণ্যসামগ্রী উৎপাদন বা ঘাটতিপূর্ণ পরিষেবা দেওয়া থেকে বিরত রাখা যাবে। ই-বাণিজ্যিক লেনদেনের ক্ষেত্রে গ্রাহকদের স্বার্থ সুরক্ষিত রাখতে বিলে নিয়ন্ত্রণমূলক ব্যবস্থার কথা বলা হয়েছে।

ক্লিক করুন এখানে, আর চটপট দেখে নিন ৪ মিনিটে ২৪টি টাটকা খবরের আপডেট