১৯ তারিখ বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন নুসরত, আত্মীয়-স্বজন থেকে বসিরহাটবাসী সকলেই রয়েছেন অধীর আগ্রহে

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক | June 12, 2019 | 4:30 pm
হবু বড় নিখিল জৈন-এর সঙ্গে অভিনেত্রী নুসরত

শর্মিলা চন্দ্র, কলকাতা: রাজনীতির মঞ্চে বড়সড় সাফল্যের পর এবার জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করতে চলেছেন টলিউডের গ্ল্যামারাস অভিনেত্রী তথা বসিরহাট লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ নুসরত জাহান। লোকসভা ভোটে জয়লাভের পর থেকেই নুসরতের বিয়ে নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছিল। জল্পনাটা শুরু হয়েছিল তাঁর হবু বর নিখিল জৈন-এর একটি ফেসবুক পোস্টকে ঘিরে। নুসরত জেতার পর নিখিল তাঁর ফেসবুক পোস্টে লেখেন, বাংলায় তৃণমূল প্রার্থীদের মধ্যে নিঃসন্দেহে নজরকাড়া ব্যবধানে জিতেছে নুসরত। এরপর সেই পোস্ট তিনি সরিয়েও নেন। জল্পনা শুরু সেখান থেকেই। তবে নুসরত খুব বেশি লুকোচুরি না করে জানিয়ে দিয়েছিলেন জুন মাসের মাঝামাঝি সময় তিনি বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছেন।

পাত্র নিখিল জৈন কলকাতার অন্যতম খ্যাতনামা শিল্পপতিদের মধ্যে একজন। কর্মসূত্রেই দুজনের আলাপ। নুসরত এবং নিখিলের চার হাত এক হচ্ছে ১৯ জুন। তবে ঘনিষ্ঠ সূত্রে জানা গিয়েছে, ১৭ জুন থেকেই বিয়ের নানা অনুষ্ঠান শুরু হয়ে যাবে।

প্রথমে নুসরত বিয়ের ডেস্টিনেশন প্লেস ঠিক করেছিলেন ইস্তামবুলে। তবে পরে তা পরিবর্তন হয়ে তুরস্কের বোদরুম শহরে বিয়ের অনুষ্ঠান হবে বলে ঠিক হয়েছে। ইতিমধ্যে বিয়ে নিয়ে তাঁর বাড়িতে সাজসাজ রব শুরু হয়ে গিয়েছে। আইবুড়ো ভাত থেকে গায়ে হলুদ একটার পর একটা অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছেন টলিউডের এই গ্ল্যামার কুইন।

ইতিমধ্যে নুসরতের ম্যানেজার অভিষেক মজুমদার তাঁকে আইবুড়ো ভাত খাইয়েও দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার নুসরতের নিজের বাড়িতেই রয়েছে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান। এই অনুষ্ঠানে থাকবেন তাঁর প্রিয় বান্ধবী মিমি চক্রবর্তী। জানা যাচ্ছে সেদিন দুজনেই হলুদ রংয়ের পোশাকে সাজবেন।

প্রিয় বান্ধবী মিমি-র সঙ্গে অভিনেত্রী নুসরত

তুরস্কে বিয়ের দুদিন আগে থেকেই সেলিব্রেশন শুরু হয়ে যাবে। ১৭ জুন পার্টি, ১৮ জুন মেহেন্দি ও সংগীতের অনুষ্ঠান, ১৯ জুন বিয়ে।

টলিউডের এই সুন্দরীর বিয়ে নিয়ে তাঁর ভক্তদের মধ্যেও জল্পনা-কল্পনার শেষ নেই। বিয়ের দিন নুসরত কী পোশাক পড়বেন, কীভাবে সাজবেন সব কিছু নিয়েই তাঁদের মধ্যে চর্চা শুরু হয়ে গিয়েছে। জানা যাচ্ছে, নুসরতের বিয়ের অনুষ্ঠানে মেকআপে থাকবেন সায়ন্ত, হেয়ারে শর্মিষ্ঠা ও নুসরতের স্টাইলিস্ট বন্ধু স্যান্ডি৷ তবে তাঁর বিয়ের সাজ ঠিক কেমন হতে চলেছে সেই বিষয় এখনই কিছু জানাতে চাইছেন না তিনি। এই বিষয়ে সকলকে সাসপেনশে রাখতে চাইছেন নুসরত।

টলিউডের এই অভিনেত্রীর বিয়েতে সবদিক থেকেই চমক রয়েছে। শুধুমাত্র বিয়ের অনুষ্ঠানে নয় বিয়ের কার্ডেও নুসরত ও নিখিল রেখেছেন অভিনবত্বের ছোঁয়া। সূঁচ-সুতোর সেলাইয়ের আদলেই সাজিয়ে তোলা হয়েছে নুসরতের বিয়ের কার্ড৷ নিখিল কাপড় ব্যবসায়ী অন্যদিকে নুসরত ভালোবাসেন ছবি আঁকতে। এই দুইয়ের সমন্বয়ে বিয়ের কার্ড বানানো হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। বিয়ের কার্ড খুললেই দেখা যাবে সাদা কাপড়ে সূঁচ-সুতোর আদলে লেখা বিয়ের অনুষ্ঠানের তারিখ, সময় ও পাত্র-পাত্রীর নাম৷ সঙ্গে গোল বাক্সে রাখা কাঠের বোতাম৷

ইতিমধ্যেই নুসরতের কলকাতার বাড়ি ইডেন ইমপেরিয়াল সেজে উঠেছে আলোয়। বিয়ের আসরে অবশ্যই থাকছেন নুসরতের বাবা-মা৷ সঙ্গে থাকবেন স্কুলের বান্ধবীরাও৷ ইন্ডাস্ট্রি থেকে মিমি চক্রবর্তী থাকবেন৷ আর রিসেপসশনের মেনুর ব্যাপারে স্বয়ং নুরসতের কাছে জানতে চাওয়া হলে, হেসে তিনি শুধু বলেন, এটা সিক্রেট। তবে আমার পছন্দের ডিশ-ই থাকবে আমার বিয়েতে।

অন্যদিকে নুসরতের বিয়ে ঘিরে বসিরহাট লোকসভা কেন্দ্রের জন সাধারণের মধ্যেও উত্তেজনার পারদ চড়ছে। ভোটের আগে প্রিয় অভিনেত্রীকে সামনে থেকে দেখেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। বিয়ের পর তাঁকে দেখার অপেক্ষায় উদগ্রীব হয়ে আছেন সেখানকার মানুষজন। তাঁরা প্রত্যেকেই আশাবাদী ভোটে যেমন জয়লাভ করেছেন তেমন কাজের মাধ্যমেও তিনি সাধারণ মানুষের মন জয় করতে পারবেন। পাশাপাশি জীবনের নতুন অধ্যায় সুন্দরভাবে শুরু করার জন্য তাঁকে শুভেচ্ছাও জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

তবে আপাতত এই অভিনেত্রীর বিয়ে নিয়ে গোটা পরিবারের ব্যস্ততা রয়েছে তুঙ্গে। পরিবারের সকলেই এখন চাইছেন ভালোয় ভালোয় চার হাত এক হয়ে যাক।

ক্লিক করুন এখানে, আর চটপট দেখে নিন ৪ মিনিটে ২৪টি টাটকা খবরের আপডেট