চলন্ত ট্রেনে ছিনতাইবাজদের কবলে পড়ে প্রাণ গেল মা ও মেয়ের

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক | August 4, 2019 | 11:40 am

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: আরো একবার প্রশ্নের মুখে দেশের রেলের নিরাপত্তা। যোগীর রাজ্যে চলন্ত ট্রেনে ছিনতাইবাজদের কবলে পড়ে প্রাণ গেল দুর্গাপুরের বাসিন্দা মা ও মেয়ের। ঘটনাটি ঘটেছে ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের মথুরারোড স্টেশনে। শনিবার মথুরারোড স্টেশনের কাছে রেল লাইনে মা মেয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। দুর্গাপুরের রাঁচি কলোনিতে থাকতেন মীনা দেবী ও তাঁর মেয়ে মনীষা কুমারী। ট্রেনে করে রাজস্থানের কোটাতে যাচ্ছিলেন তাঁরা। উদ্দেশ্যে মনীষাকে সেখনকার মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করা। উত্তরপ্রদেশের মথুরার কাছে ছিনতাইকারীদের কবলে পড়েন মা-মেয়ে। ছিনতাইকারীরা টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে নিতে গেলে বাধা দেন মা। তাঁকে ট্রেন থেকে ছুঁড়ে ফেলে দেয় ছিনতাইকারীরা। মাকে বাঁচাতে গিয়ে ট্রেন থেকে ঝাঁপ দেন মেয়ে মনীষাও।

শনিবার মথুরারোড স্টেশনের কাছে রেল লাইনে মা মেয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করে রেল পুলিশ। যদিও পুলিসের দাবি ট্রেন থেকে ছুঁড়ে ফেলার ঘটনা নয়, ছিনতাইকারীদের তাড়া করতে গিয়ে অন্য ট্রেনের ধাক্কায় মৃত্যু হয়েছে মা ও মেয়ের। অন্যদিকে এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতে না দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে রেলের কর্মীদের বিরুদ্ধে। শুরু হয়েছে তদন্ত। এর আগেও রেলের নিরাপত্তা নিয়ে উঠেছিল প্রশ্ন। সব কামরায় আরপিএফ নিয়োগের কথা জানিয়েছিলেন রেলমন্ত্রী। কিন্তু আবারও সেই এক ঘটনা। প্রশ্নের মুখে দেশের রেলের নিরাপত্তা। যোগীর রাজ্যে চলন্ত ট্রেনে ছিনতাইবাজদের কবলে পড়ে প্রাণ গেল দুর্গাপুরের বাসিন্দা মা ও মেয়ের। ঘটনাটি ঘটেছে ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের মথুরারোড স্টেশনে। শনিবার মথুরারোড স্টেশনের কাছে রেল লাইনে মা মেয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। দুর্গাপুরের রাঁচি কলোনিতে থাকতেন মীনা দেবী ও তাঁর মেয়ে মনীষা কুমারী। ট্রেনে করে রাজস্থানের কোটাতে যাচ্ছিলেন তাঁরা। উদ্দেশ্যে মনীষাকে সেখনকার মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করা। উত্তরপ্রদেশের মথুরার কাছে ছিনতাইকারীদের কবলে পড়েন মা-মেয়ে। ছিনতাইকারীরা টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে নিতে গেলে বাধা দেন মা। তাঁকে ট্রেন থেকে ছুঁড়ে ফেলে দেয় ছিনতাইকারীরা। মাকে বাঁচাতে গিয়ে ট্রেন থেকে ঝাঁপ দেন মেয়ে মনীষাও।

শনিবার মথুরারোড স্টেশনের কাছে রেল লাইনে মা মেয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করে রেল পুলিশ। যদিও পুলিসের দাবি ট্রেন থেকে ছুঁড়ে ফেলার ঘটনা নয়, ছিনতাইকারীদের তাড়া করতে গিয়ে অন্য ট্রেনের ধাক্কায় মৃত্যু হয়েছে মা ও মেয়ের। অন্যদিকে এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতে না দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে রেলের কর্মীদের বিরুদ্ধে। শুরু হয়েছে তদন্ত। এর আগেও রেলের নিরাপত্তা নিয়ে উঠেছিল প্রশ্ন। সব কামরায় আরপিএফ নিয়োগের কথা জানিয়েছিলেন রেলমন্ত্রী। কিন্তু আবারও সেই এক ঘটনা।

ক্লিক করুন এখানে, আর চটপট দেখে নিন ৪ মিনিটে ২৪টি টাটকা খবরের আপডেট