গুরুদাস দাশগুপ্তের প্রয়াণে শোকাহত রাজনৈতিক মহল

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক:  গুরুদাস দাশগুপ্তের প্রয়াণে শোকাহত রাজনৈতিক মহল। শোকবার্তা জানিয়ে টুইট করেছেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। তিনি লিখেছেন, সিপিআই নেতা এবং শ্রমিক আন্দোলনের নেতা গুরুদাস দাশগুপ্তর সংসদে বলিষ্ঠ উপস্থিতি ছিল। তাঁর মৃত্যুত বাংলা তথা গোটা দেশের অপূরণীয় ক্ষতি।

শোকবার্তা জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি লিখেছেন, ‘‘সাংসদ এবং শ্রমিক সংগঠনের নেতা হিসেবে ওঁর অবদান মনে রাখবে দেশ।’’

টুইটে শোকবার্তায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি লিখেছেন, ‘‘নিজের রাজনৈতিক ভাবধারা ও আদর্শে গুরুদাস দাশগুপ্ত নিবেদিত প্রাণ ছিলেন। সংসদে ছিলেন বলিষ্ঠ কণ্ঠস্বর।’’

এর পাশাপাশি শোকজ্ঞাপন করেছেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র বলেন, ট্রেড ইউনিয়ন আন্দোলনের অবিসংবাদী নেতা গুরুদাস দাশগুপ্তের মৃত্যুতে আমি গভীর মর্মাহত। তাঁর মৃত্যুতে ট্রেড ইউনিয়ন আন্দোলনের অপূরনীয় ক্ষতি হলো। প্রয়াত গুরুদাস দাশগুপ্তের রাজনৈতিক সততা, আগামী  প্রজন্মের কাছে দৃষ্টান্ত স্বরূপ হয়ে থাকবে।

[আরও পড়ুন: প্রয়াত সিপিআই-এর প্রাক্তন সাংসদ গুরুদাস দাশগুপ্ত]

গুরুদাস দাশগুপ্ত আজ আর নেই ―  ভাবতে পারছিনা, বলেন অধীর রঞ্জন চৌধুরী। আমি তাঁর বিদেহী আত্মার চিরশান্তি কামনা করি এবং তাঁর শোকসন্তপ্ত পরিবারবর্গের জানাই আন্তরিক সমবেদনা। একজন প্রকৃত শ্রমিক নেতা, গরিব মানুষের নেতা ছিলেন তিনি। আমি শোকাহত, একজন মানুষের মত মানুষ হারালাম।

আর এস পি পশ্চিবঙ্গ রাজ্য  কমিটির সম্পাদক বিশ্বনাথ চৌধুরী গভীর শোক ব্যনক্ত করেছেন কমরেড গুরুদাস দাশগুপ্তর প্রয়াণে। তিনি বলেন যে, কম দাশগুপ্ত আজীবন দেশের শ্রমজীবী মানুষের শোষণমুক্তির সংগ্রামের এক অক্লান্ত কর্মী ও নেতা ছিলেন। তিনি একজন অতি দক্ষ সাংসদ

হিসাবে শ্রমিক শ্রেণির স্বার্থ রক্ষা ও তা অগ্রসারিত করার প্রশ্ন সতত ক্রিয়াশীল ছিলেন। বস্তুত, তিনি ছাত্রজীবন থেকেই প্রগতিশীল সমাজ পরিবর্তনের সংগ্রামে যুক্ত হন। পরবর্তী জীবনে তিনি দেশের শ্রমিক আন্দোলনের অন্যইতম প্রধান নেতা হিসাবে অতীব তাৎপর্যপূর্ণ ভূমিকায় ছিলেন দীর্ঘদিন।  দাশগুপ্তর মৃত্যু গভীর শূন্যঅতা সৃষ্টি করল গণতান্ত্রিক আন্দোলনের ক্ষেত্রে। আর এস পির পক্ষ থেকে আমরা গভীর শোক প্রকাশ করছি এবং সংগ্রামী স্মৃতির প্রতি রক্তিম অভিবাদন জানাচ্ছি।

(shreyashree)

 

(Visited 20 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here