কলকাতায় পঞ্চম জাতীয় হস্তচালিত তাঁত দিবস উদযাপিত

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক | August 8, 2019 | 1:18 pm

কলকাতা: দেশীয় উৎপাদনকে উৎসাহিত করতে এবং তাঁতিদের সম্মান জানাতে কলকাতায় বুধবার পঞ্চম জাতীয় হস্তচালিত তাঁত দিবস উদযাপন করা হয়। কেন্দ্রীয় বস্ত্র মন্ত্রকের অধীন তাঁতি পরিষেবা কেন্দ্রের উদ্যোগে ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ফ্যাশন টেকনোলজির সহযোগিতায় এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উদ্বোধনী ভাষণে জুট কমিশনার শ্রী এম সি চক্রবর্তী বলেন, তাঁতিদের কল্যাণে ‘হাতখড়্গ সম্বর্ধন সহায়তা প্রকল্প’, মুদ্রা যোজনা, পরিচয়পত্র ও পাসবুক প্রদানের মতো একাধিক উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। তিনি তাঁতিদের বৈচিত্র্যপূর্ণ পণ্য উৎপাদনের জন্য অভিনন্দন জানান।
তাঁতি পরিষেবা কেন্দ্রের উপ-মহানির্দেশক শ্রী তপন শর্মা বলেন, হস্তচালিত তাঁত শিল্পের উন্নয়নে সরকার একাধিক উদ্যোগ নিয়েছে। এক্ষেত্রে প্রযুক্তির উন্নতি, তাঁতিদের দক্ষতা বৃদ্ধি, প্রশিক্ষণ প্রদান এবং প্রযুক্তিগত সহায়তাদান করা হয়েছে। তিনি জানান, তাঁতিদের আয় বৃদ্ধি এবং আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের লক্ষ্যেই এই জাতীয় হস্তচালিত তাঁত দিবস উদযাপন করা হয়। ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ফ্যাশন টেকনলজির (এনআইএফটি) অধিকর্তা কর্নেল সুব্রত বিশ্বাস বলেন, হস্তচালিত তাঁত এবং হস্তশিল্প ক্ষেত্রে ছাত্রছাত্রীরা যাতে আরও বেশি গবেষণা এবং উদ্ভাবনের সুযোগ পায় তার জন্য কেন্দ্রীয় বস্ত্র মন্ত্রক থেকে যথেষ্টই সাহায্য পাওয়া গেছে।
হস্তচালিত তাঁত শিল্পের বিকাশের জন্য প্রতি বছর ৭ই অগাস্ট জাতীয় হস্তচালিত তাঁত দিবস উদযাপন করা হয়। ২০১৫ সালে কেন্দ্রীয় সরকার এই দিনটিকে জাতীয় দিবস হিসেবে ঘোষণা করেছিল। ১৯০৫ সালে বঙ্গভঙ্গের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে কলকাতার টাউন হলে স্বদেশী আন্দোলনের সূচনা হয়েছিল এদিনই। এই আন্দোলনের লক্ষ্যই ছিল বিদেশি দ্রব্য বর্জন করে স্বদেশী দ্রব্য গ্রহণ।
প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী ২০১৫ সালের ৭ অগাস্ট চেন্নাইয়ের মাদ্রাজ বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম জাতীয় তাঁত দিবসের সূচনা করেছিলেন।

ক্লিক করুন এখানে, আর চটপট দেখে নিন ৪ মিনিটে ২৪টি টাটকা খবরের আপডেট