কাশ্মীরে জমি বিক্রির নাম করে ভুয়ো খবর, তদন্তে গোয়েন্দারা

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক | August 7, 2019 | 11:16 am

কলকাতা: কাশ্মীরে জমি বিক্রির নাম করে ভুয়ো খবর ছড়াল। সোমবার ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ ও ৩৫-এ ধারা বিলোপ নিয়ে রাষ্ট্রপতির নির্দেশ জারি হওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই কলকাতার একটি নামী রিয়েল এস্টেট নির্মাতা সংস্থার নামে এমন ভুয়ো মেসেজ ছড়ানোর অভিযোগ ওঠে । ওই রিয়েল এস্টেট সংস্থার পক্ষ থেকে মঙ্গলবার অভিযোগ জানানো হয় লালবাজারে । ঘটনার তদন্তে নেমেছে কলকাতা পুলিশ ।
জম্মু ও কাশ্মীর নিয়ে এই বিতর্কিত সিদ্ধান্তের দিন সকালেই দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বসবাস করা কাশ্মীরিদের নিরাপত্তা নিয়ে সতর্কতা জারি করেছে কেন্দ্র । এই রাজ্যেও মুখ্যসচিব ও ডিজির উদ্দেশ্যে পাঠান সতর্কবার্তায় কাশ্মীরিদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়ানো গুজব নিয়ে পুলিশকে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে । সেই মত কলকাতার যে সব এলাকায় কাশ্মীরিরা বেশি সংখ্যায় বাস করেন অথবা যে সব এলাকায় তাঁদের যাতায়াত করতে হয়, সেখানে বাড়তি নজর রাখতে বলা হয়েছে থানাগুলোকে ।
লোকসভা ভোটের আগে পুলওয়ামায় জঙ্গি হানার পরেই দেশের অন্যান্য রাজ্যের মত এখানেও যাতে কাশ্মীর থেকে আসা শাল ব্যবসায়ীদেরই হামলার টার্গেট হিসেবে বেছে না নেওয়া হয় তার জন্য সেই সময়েই শহরের কোন কোন জায়গায় কাশ্মীরিরা রয়েছেন, তা চিহ্নিত করা হয় । বৌবাজার, বেহালা, ঠাকুরপুকুর ও কলকাতা বন্দরের কিছু এলাকায় কাশ্মীরিরা রয়েছেন বলে পুলিশ প্রশাসনের নজরে আসে । তখন ওই এলাকাগুলিতে বাড়তি নজরদারির ব্যবস্থা করা হয়েছিল । এ বারও ওই এলাকায় সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে । কাশ্মীরি পড়ুয়ারা কলকাতায় থাকেন, এখানকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিতে ক্লাস করেন । তাঁদের কথাও মাথায় রাখা হয়েছে ।
লালবাজারের এক কর্তা এদিন বলেন, ‘ওই থানাগুলোকে এ বার আরও বেশি করে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে’। কলকাতার পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা শহরের সব থানার অফিসার ও কর্মীদের বেশি করে রাস্তায় থাকার নির্দেশ দিয়েছেন, যাতে কোনও রকম গোলমাল না ছড়ায় । কেন্দ্রের নির্দেশিকাতেও বলা হয়েছে, রাজ্য পুলিশ ও প্রশাসন যাতে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নেয় এবং সংশ্লিষ্ট নাগরিকদের আস্থা বাড়াতে সেই সব পদক্ষেপের কথা যাতে ভালো ভাবে প্রচার করা হয়, সে দিকে জোর দিতে হবে । পাশাপাশি, যে কোনও মাধ্যমে যে কোনও ধরনের গুজব ছড়ানো বন্ধ করতে পুলিশকে নজরদারি বাড়াতে হবে ।
তার মধ্যেই এদিন ইডেন রিয়েলটি গ্রুপ নামে একটি সংস্থার তরফ থেকে বলা হয়েছে, তাদের নাম করে কেউ বা কারা কাশ্মীরে সস্তায় জমি কেনার ভুয়ো খবর প্রচার করছে । মোবাইলে পাঠানো সেই মেসেজের স্ক্রিনশট সোশ্যাল মিডিয়াতেও ভাইরাল হয়েছে । সঙ্গে সঙ্গেই বিষয়টি লালবাজারের সাইবার থানায় জানানো হয়েছে । সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, এই ধরনের কোনও মেসেজ তারা পাঠায়নি । যে ফোন নম্বর থেকে মেসেজ পাঠানো হয়েছে, সেটিও তাদের নয় । ওই নম্বর থেকে তাদের সংস্থার নম্বরে কল ফরোয়ার্ড করে রাখা হয়েছে । এতে সাধারণ মানুষের মধ্যে আরও বেশি করে বিভ্রান্তি ছড়িয়েছে ।
লালবাজার সূত্রে জানা গেছে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কলকাতা পুলিশের ডিডেকটটিভ ডিপার্মেন্ট ।

ক্লিক করুন এখানে, আর চটপট দেখে নিন ৪ মিনিটে ২৪টি টাটকা খবরের আপডেট